মেসির পূজা করবেন না : ম্যারাডোনা

আগের সংবাদ

মুখ খুললেন মন্দানা

পরের সংবাদ

০ রানে ইনিংস ডিক্লেয়ার করে দিল দুই দল!

প্রকাশিত হয়েছে: অক্টোবর ১৪, ২০১৮ , ৭:০৮ পূর্বাহ্ণ | আপডেট: অক্টোবর ১৪, ২০১৮, ৭:০৮ পূর্বাহ্ণ

ক্রিকেটারদের কাণ্ডকারখানা মাঝেমধ্যে সীমা ছাড়িয়ে যায়। যেমন দুই দল নিজেদের ইনিংস ডিক্লেয়ার করে দিল ০ রানে! এমন আজব ঘটনা টেস্ট ক্রিকেটে মাত্র একবারই দেখা গেছে। ইংল্যান্ডে কাউন্টি চ্যাম্পিয়নশিপেও এমন ঘটেছে একবার। শনিবার নিউজিল্যান্ডে সেন্ট্রাল স্ট্যাগস ও ক্যান্টারবেরির মধ্যে প্রথম শ্রেণির ম্যাচেও এমন ঘটল।

২০০০ সালে সেঞ্চুরিয়ানে দক্ষিণ আফ্রিকা ও ইংল্যান্ডের মধ্যে টেস্টে এই ঘটনা ঘটেছিল। যখন প্রতিপক্ষ দুই দলই একটি করে ইনিংস ডিক্লেয়ার করে দিয়েছিল। ২০১৩ সালে হ্যাম্পশায়ার ও গ্লস্টারশায়ারের মধ্যে কাউন্টির ম্যাচেও এটা হয়েছিল।

নিউ জিল্যান্ডের নেসলনে স্যাক্সটন ওভালে প্লাঙ্কেট শিল্ডের ম্যাচে প্রথম দিনের শেষে সেন্ট্রাল স্ট্যাগস ৭ উইকেটে ৩০১ রান তুলেছিল। ম্যাচের দ্বিতীয় ও তৃতীয় দিনে প্রবল বৃষ্টিতে খেলা হয়নি। চতুর্থ তথা শেষ দিনের সকালে স্ট্যাগস ৭ উইকেটে ৩৫২ রান তুলে ইনিংসের সমাপ্তি ঘোষণা করে। উইলিয়েম লুডিক প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে প্রথম সেঞ্চুরি করেন। এরপর ক্যান্টারবুরি ইনিংসের সমাপ্তি ঘোষণা করে ০ রানে।

সেন্ট্রাল স্ট্যাগসও তাই করে। ফলে ম্যাচটা মূলতঃ এক ইনিংসের খেলা হয়ে ওঠে। জয়ের জন্য ক্যান্টারবেরিকে ৮৯ ওভারে করতে হতো ৩৫৩ রান। কিন্তু ১৩১ রানে ৯ উইকেট হারিয়ে বসে দলটি। পেসার সেথ র‌্যান্সই ৫ উইকেট নিয়ে ধ্বংসের নায়ক। এই পরিস্থিতি থেকে অসম্ভব লড়াই করে ড্রয়ের দিকে এগোতে থাকে ক্যান্টারবেরির দশম উইকেটে অ্যান্ড্রু হ্যাজেলডিন ও উইল উইলিয়াম্সের জুটি।

অসীম ধৈর্যের পরিচয় দিয়ে দুজনে মিলে খেলেন মোট ২৫.৫ ওভার। কিন্তু ম্যাচের শেষের আগের ওভারে আউট হয়ে যান এগার নম্বর ব্যাটসম্যান হ্যাজেলডিন। ২০৭ রানে শেষ হয় ক্যান্টারবেরি। নাটকীয় ভাবে ১৪৫ রানে জিতে যায় সেন্ট্রাল স্ট্যাগস।